ছোট ছোট কথা | ঘাটের কথা . . .

বুড়ীগঙ্গা নদীর ঘাটে বসে থাকা নৌকার মাঝি । ঢাকা, ২০ এপ্রিল ২০১৯ ছবি: © মনিরুল আলম

সেদিন গিয়েছিলাম বুড়ীগঙ্গা নদীর এক ঘাটে— বসে ছিলাম প্রায় সারা বিকেল ।পাশেই পোস্তগোলা শশ্মান ঘাট—এই শশ্মান ঘাটকে কেন্দ্র করে রয়েছে আমার অনেক স্মৃতি ! প্রিয় বন্ধু ‘বাবু’ সড়ক দূর্ঘটনায় মারা গেলে ওকে আমরা এই শশ্মান ঘাটে দাহ্য করেছিলাম । সারারাত ধরে জ্বলতে থাকা চিতার আগুনের সামনে আমরা দাড়িয়ে ছিলাম ক’বন্ধু—দেখছিলাম আমাদের প্রিয় বন্ধুটি চিতার আগুনে আস্তে আস্তে পুড়ে ছাই হয়ে মিলিয়ে যাচ্ছে আমাদের সামনে থেকে ।

অনেকদিন এদিকটায় আসা হয় না; আজ যেন কি মনে হলো সঙ্গে ক্যামেরাটি নিয়ে বেড়িয়ে পরলাম। বুড়ীগঙ্গার এই দিকটায় এতোটা প্রাণচাঞ্চল্য নেই—সদরঘাটের মতো । এসব ঘাটে নৌকা খুব বেশী থাকে না যাত্রীও কম পারাপার হয় । ৭/৮ টি নৌকা ঘাটে সিরিয়াল দিয়ে যাত্রী পারাপার করে ।এক নৌকায় ৮/১০ জন যাত্রী হলে মাঝি তার নৌকা নিয়ে বুড়ীগঙ্গা নদী পাড়ি দেন । জন প্রতি পারাপারে দশ টাকা করে নেন তারা । আমি ঘাটের এক পাশে দাড়িয়ে ছবি তুলছিলাম আর মাঝিদের কথা শুনছিলাম ।

তাদের দৈনন্দিন জীবনের আয়-রোজগার, থেকে শুরু করে—পরিবার-পরিজন, সমাজ-সংসার, রাজনীতি, ধর্ম তাবৎ দুনিয়ার গল্প তারা করেন; ঘাটে বসে থেকে।একটু ধৈর্য ধরে বসে তাদের কথা শুনলে বর্তমান সমাজ নিয়ে তাদের ভাবনা-চিন্তা গুলো জানা যায়—বোঝা যায়।

এখন চলছে বর্ষার ভরা মৌসুম । বুড়ীগঙ্গা নদীর দিকে তাকালে সেই চিত্র স্পষ্ট ! দেশের বেশ কয়েকটি জেলায় বন্যার কারণে পানি বন্দী হয়ে পড়েছে দরিদ্র এবং নিম্ন আয়ের মানুষেরা । এদের আলাপচারিতায় সেইসব মানুষের দুঃখ-কষ্টের কথা গুলো জানা গেল ।

আমি একজন মাঝিকে জিজ্ঞেস করলাম, নদীতে এতো কচুরিপানা কেন ? উত্তরে হাসেম মাঝি আমাকে বলেন— আর কইয়েন না ভাই, এই পানা কাইটা নৌকা পাড়ে ভিড়াইতে আমাগো খুব কষ্ট হয়, যাত্রীরা নৌকায় হাত না লাগাইলে একা একা নৌকা চালানো যায় না; এই সব পানা বানের স্রোতে ভাইস্যা আইছে— ভাই।

হঠাৎ একজন বলে উঠলো; ঐ দেহেন একটা গুইসাপ সাঁতার কাইটা এই দিকে আইতেছে, আমরা সবাই তাকালাম । আমি দেখলাম— সাপটি সাঁতার কেটে এসে কচুরিপানা গুলোর মধ্যে আশ্রয় নিলো । মাঝিদের মধ্যে একজন বলে উঠলো, ঐ গুইসাপকে মারিস না—গুইসাপ মারতে হয় না; ওইডা মনে হয় বানের পানিতে ভাইস্যা আইসে । আমি সাপটিকে দেখি তার কয়েকটা ছবি তুলি !

ইতিমধ্যে মাঝিরা নতুন নতুন যাত্রী নিয়ে নদী পাড়ি দিচ্ছেন। কেউ কেউ নৌকায় বসে ঝিমুচ্ছেন; কেউ আবার নতুন গল্প জুড়ে দিচ্ছেন, একজন মাঝি বলে ওঠেন— ভাই এই ঘাটে আমি একজন মানুষরে মইরা যাইতে দেখছি—মানুষটা ১৩ বছর যাবত পঙ্গু হইয়া বাড়ীতেই থাকতো। দুই হাতের উপর ভর কইরা চলাচল করতো । একদিন এই ঘাটের সামনে আইয়া পিছলা খ্যাইয়া পইড়া গেল; হের পরে হে মইরা গেল গা— হাইরে মানুষের জীবন !

সন্ধ্যা নেমে আসে । আমি কচুরিপানা গুলোর দিকে তাকাই—তারা দলে দলে ভেসে আসছে; গুইসাপটিকে খুঁজি; চোখে পরে না । একজন মাঝিকে দেখি— কচুরিপানা কেটে কেটে যাত্রী নিয়ে নদী পাড়ি দিচ্ছেন। সদরঘাট লঞ্চ টারর্মিনাল থেকে ইষ্টিমার ছেড়ে আসার শব্দ পাই। আমি ফিরে যাবার জন্য তৈরি হই। আজ আমাকে দৈনন্দিন জীবনের কিছু ছবি পাঠাতে হবে আমার এজেন্সি—ইপিএ’র জন্য . . .

২০ এপ্রিল ২০১৯ বুড়ীগঙ্গা নদী

ঢাকা, বাংলাদেশ

বুড়ীগঙ্গা নদী পারাপার . . .

18670957_10158775680125707_7183096945597771050_n
© Monirul Alam / WITNESS PHOTO

সংবাদ আলোকচিত্র ~ স্কুল শিক্ষার্থীরা স্কুল ছুটি শেষে লাইফ জ্যাকেট পরে নৌকায় করে, বুড়ীগঙ্গা নদী পারাপার হচ্ছে । গরমের উত্তাপ থেকে বাঁচতে, মাথায় ছাতা ধরে রেখেছে । নিজেদেরকে নৌ দূরর্ঘটনার হাত থেকে রক্ষা করতেই এই ব্যবস্থা ! এ সকল স্কুল শিক্ষার্থীরা লাইফ জ্যাকেট পরে প্রতিদিন নৌকায় বুড়ীগঙ্গা নদী পার হয়ে স্কুলে যাওয়া-আসা করে ।

ঘাটের টোল আদায়কারী চাঁন মিয়া জানান, কেরাণীগঞ্জের নানা এলাকা থেকে এ সকল শিক্ষার্থীরা নৌকায় করে আসে,ঢাকায় । নৌকা দিয়ে পারাপারের সময় তারা এই জ্যাকেট গুলো পরে, নৌকা ডুবির হাত থেকে বাঁচতেই, অভিভাবকরা এই ব্যবস্থা করে দিয়েছেন, নিজ নিজ সন্তানের জন্য । তারা লাইফ জ্যাকেট গুলো ঘাটেই রেখে যায়, কেউ কেউ নৌকাতে রাখে । হারানোর কোন সুযোগ নেই। পরিচিত হয়ে গেছে সবাই । ২৩ মে, ২০১৭ সদরঘাট, বুড়ীগঙ্গা নদী, ঢাকা, বাংলাদেশ । ছবি: মনিরুল আলম

Daily Life

© Monirul Alam
© Monirul Alam

Dhaka,  Bangladesh December, 2005

“A villager through a piece of cloth ( local name Gamcha) each other,they ware a Gamcha for cross the water line, number of villager like  catch fish during the winter season. These pictures taken outskirts of Dhaka.

Copy Right Notice:
All images and text in this site is copyrighted. http://monirul.photoshelter.com/  OR see more on http://statigr.am/meghmonir Please don’t use any image without written permission. Please contact witnessphoto@gmail.com

Daily Life | Manikgonj

© Monirul Alam
© Monirul Alam

Dhaka,  Bangladesh May 2005

“A wonderful fact to reflect upon, that every human creature is constituted to be that profound secret and mystery to every other”.- Charles Dickens

Copy Right Notice:
All images and text in this site is copyrighted. http://monirul.photoshelter.com/  OR see more on http://statigr.am/meghmonir Please don’t use any image without written permission. Please contact witnessphoto@gmail.com

 

 

Risky River Transport in Bangladesh

© Monirul Alam

 Southwest of Dhaka on the Padma River, Passengers ride on the speed boats wearing without life-jacket and to cross the Padma river between Madaripur to Munsigonj District’s  every day in people’s daily  life in Bangladesh. Home bound passenger like this service causes save their valuable time. But this speed boats trip is high risk special is in monsoon time.Dhaka September 2011. © Monirul Alam